22 C
Kolkata

Municipal Election 2021 : সংক্রমণ বাড়লে পুরভোট বন্ধের পক্ষে দিলীপ ঘোষ : Dilip Ghosh

নিজস্ব সংবাদদাতা : সংক্রমণ আরও বাড়লে কী হবে? এনিয়ে রাজ্য সরকারকে নিশানা করার পাশাপাশি ভোট বন্ধ করে দেওয়ার পক্ষে জোর সওয়াল তুললেন রাজ্যের প্রাক্তন বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ।দিলীপ ঘোষ বলেন, করোনা পরিস্থিতি এরপর কী হবে জানি না। যদি আগামী ১০-১৫ দিনের মধ্যে ব্যাপক হারে করোনা ছড়ায় তাহলে আদৌ কি ভোট সম্ভব?

আর বাকী যে ১১৫টা পুরসভায় ভোট হওয়ার কথা তার কী হবে? সেগুলো তো আরও জলের মধ্যে পড়ে যাবে। সরকার চায় না পুর ভোট হোক। আমাদের বক্তব্য ছিল সব পুরসভার ভোট একসঙ্গে হোক। সেটা করা হয়নি। কোর্টের কাছ কানমোলা খেয়েও ইচ্ছে করে ভোট পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে। এখন করোনা পরিস্থিতি সেরকম হলে তা হলে নিশ্চয় বৈঠক বন্ধ করা উচিত। সোমবার সংবাদমাধ্য়মে দিলীপ ঘোষ আরো বলেন, বিধানসভা নির্বাচনের সময়ে রাজ্যে করোনা সংক্রমণ বাড়েনি।

আরও পড়ুন:  গুজরাট ভোটের আগে 'ফুল বেঞ্চ' হল কমিশন, নিযুক্ত দেশের নতুন নির্বাচন কমিশনার

সেই সময় মহারাষ্ট্র ও দিল্লিতে করোনা বাড়ছিল। আর এখানে আওয়াজ উঠছিল ভোট বন্ধ করে দাও। আর এখন রাজ্যে কয়েকটি পুরসভার ভোট হবে তখন সেটা করতে পারছে না রাজ্য সরকার। কারণ ভোটটা লুট করতে হবে। কলকাতার সঙ্গে একসঙ্গেই অন্যান্য পুরসভার ভোট করিয়ে দেওয়া উচিত ছিল। তাহলে এই উদ্বেগ থাকতো না। দিলীপ ঘোষের মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে তৃণমূল মুখপাত্র বিশ্বজিত্ দেব বলেন, আমরা সবাই জানি করোনা পরিস্থিতি কী অবস্থায় রয়েছে।

সেই পরিস্থিতিতে কমিশন একটা কড়া অবস্থান নিয়েছে। কমিশন চাইছে ধাপে ধাপে নির্বাতন করাতে। এতে আপত্তি কেন? আট দফায় বিধানসভা নির্বাচন হয়েছে। মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায় অনুরোধ করেছিলেন বিধানসভার শেষ তিন দফা একসঙ্গে করে দেওয়া হোক। কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশন তা মানেনি। এতে মানুষ প্রাণহানি হয়েছে। আমরা এটা চাই না।

আরও পড়ুন:  Dilip Ghosh : রাজ্যের শাসক দলকে ফের কড়া সুরে বিঁধলেন দিলীপ ঘোষ

Featured article

%d bloggers like this: