27 C
Kolkata

Dream job: ক্যান্ডি টেস্ট করে উপার্জন করুন ৭৮ লক্ষ টাকা

নিজস্ব সংবাদদাতা: স্কুল পেরিয়ে কলেজ শেষ হতে না হতেই কেরিয়ার দাড় করানো প্রতিজগিতায় নাম লিখিয়ে ফেলে প্রায় সকলেই। কাজ করতে ভাল লাগুক বা না, টাকার প্রয়জনে মুখ বন্ধ করে বহমান সমাজের সাথেই বয়ে চলতে হয় বহু তরুন-তরুনিদের। তাদের কেউ কেউ খেতে ভালবাসেন, কারর ঘমাতে ভাললাগে, কেউ আবার সারা দিন গেম খেলেই কাটিয়ে দিতে চান। তবে তা করলে কি আর টাকা পাওা যাই? আজ্ঞে হ্যাঁ পাওা যাই, জেনে অবাক হলেন তো? হওারি কথা। তবে জেনে নিন তা কি করে সম্ভব।

এক কানাডিয়ান সংস্থা তাদের কম্পানির বিশেষ একটি পদে কর্মী নিয়গ প্রক্রিয়া চালু করেছে। যাকে বলা হবে ‘চিফ ক্যান্ডি অফিসার’ এবং তার কাজ মাসে ৩৫০০ ক্যান্ডি টেস্ট করা। আর তার জন্যই তারা আপনাকে দেবে বছরে ১০০০ ডলার যা ভারতীয় মুদ্রায় ৭৮.৫ লক্ষ টাকা। এই চাকুরী পেতে আপনাকে PhD করতে হয়না, শুধু মাত্র ‘sweet tooth’ অর্থাৎ মিষ্টি প্রিয় হলেই হিবে

ঠিক তেমনই, বেশ কিছু ৫ তারা হোটেল রয়েছে যারা শুধু মাত্র ঘুমানর জন্য বেতন প্রদান করে। তাদের নতুন হোটেলের বিছানা কতটা আরামদায়ক তা পরিক্ষা করতে আলাদা করে একজন কর্মচারী রাখা হয়। রাতের শেষে শুধু আপনাকে সেই হোটেলের বিছানা এবং পরিশেবার উপর একটি রিভিউ দিতে হয় এবং এই কাজের জন্য তারা আপনাকে দেবে লক্ষ লক্ষ টাকা। ‘ওয়েনে মুনেল্যি’ তিনি হলেন একজন Travelodge’s ‘director of sleep অর্থাৎ ট্র্যাভেলজ’র ঘুমের পরিচালক। একটি হোটেল তাকে নিয়োগ করেচছে শুধুমাত্র তাদের ১৭০০০ রুমে ঘুমানর জন্য। এবং বিনিময়ে কম্পানি তাকে বাৎসরিক ৬৫ পাউন্ড প্রদান করবে যা ভারতীয় মুদ্রাতে ৭৫ লক্ষ টাকা।

beautiful girl sleeps in the bedroom

ঘুমতে না চাইলে গেম তো খেলতেই পারেন। আর যদি আপনি একজন অনলাইন গেম লভার হয়ে থাকেন তাহলে তো কথাই নেই? এমন বহু ভিডিও গেমিং কম্পানি রয়েছে যারা তাদের নতুন তৈরি গেম টেস্ট করতে নিযুক্ত করে বহু কর্মচারী। দিনের শেষে গেমের কী ভালো লাগল আর কী লাগল না সে ব্যাপারে আপনাকে রিপোর্ট করতে হবে কর্তৃপক্ষ কে। এতে কম্পানি আপনাকে প্রতি ঘণ্টা বাবদ প্রদান করবে ১৮ ডলার অর্থাৎ দিনের শেষে ১১ হাজার ২০০ টাকা

অনলাইন গেমিং পছন্দ করে না? তাও করতে চান না? তাহলে ‘Sorry’ তো বলতেই পারেন? হ্যাঁ জাপানে আপনি sorry বলে উপার্জন করতে পারেন হাজার হাজার টাকা। তার জন্য আপনার কনও জজ্ঞতা লাগে না। শুধু মাত্র একজনের হয়ে আর একজনকে sorry বলতে হবে। সাধারনত এই কাজতি আপনাকে তাদের হয়ে করতে হয় যারা তাদের অহঙ্কারের ফলে সামনের মানুষটির থেকে ক্ষমা চাইতে পারে না। জাপানের এক ‘ আয়পলজি এজেন্সির ‘ কর্মী তার এক ইন্টারভিউয়ে জানিয়েছেন তাদের কাছে সবছেয়ে বেশি অনুরধ আসে, ভালবাসার সম্পর্কে নিজের পার্টনারকে তার হয়ে sorry বলার জন্য। একটি মাত্র সরাসরি ক্ষমা চাওয়ার বদলে মিলবে ৪০০ ডলার যা ভারতীয় মুদ্রায় ৩১ হাজার টাকা। কেউ কি কখন ভেবেছিল এইভাবে ও টাকা উপার্জন করা সম্ভব? তাহলে আর বাড়িতে বসে থাকবেন না কারন আপনার ‘ড্রিম জব’ এখন আর ‘ড্রিম’ নয় ‘রিয়্যালিটি’ হয়ে গেছে।

Featured article

%d bloggers like this: