27 C
Kolkata

Bhagwanji : গুমনামী বাবার রহস্য শেষ পর্যন্ত রহস্য থেকে গেল!

বিশেষ সংবাদদাতা :: গুমনামী বাবা বা ফাউজাবাদের সেই সন্ন্যাসীর রহস্য শেষ পর্যন্ত রহস্য ই থেকে গেল. রহস্যর পর্দার উন্মোচন হল না. বিশিষ্ট নেতাজি গবেষক পূরবী রায় বা মুখার্জি কমিশন যদিও গুমনামী বাবা নেতাজি ছিলেন না, ছিলেন তার ডামি বলে জোর সওয়াল করে গেছেন, কিন্তু বহু নেতাজি প্রেমী আজও মনে করেন ফাউজাবাদের ওই সাধুই নেতাজি ছিলেন.

দুজনের চেহারার সাদৃশ্য ছাড়াও নেতাজির দাঁতের একটি অংশ যে ফাঁকা ছিল তা গুমনামী বাবাতেও পরিলক্ষিত হয়. একটি দাঁত গুমনামী বাবার সোনা দিয়েবাঁধানো ছিল, নেতাজিরও একটি দাঁত সোনা দিয়ে বাঁধানো ছিল. গুমনামী বাবার মৃত্যুর পর তাঁর তোরঙ্গ থেকে নেতাজি সম্পর্কিত বহু দলিল পাওয়া যায়. সর্বত্যাগি সন্ন্যাসী এই দলিল নিয়ে কি করছিলেন তার যুক্তিগ্রাহ্য উত্তর মেলেনা. সরজু নদী তীরে গুমনামী বাবার দাহর সময় একজন বলেছিলেন, আজ আমরা মাত্র তেরো জন এই দাহ কার্যে.

অথচ আজ তেরো লক্ষ লোকের সমাবেশ হওয়া উচিত ছিল. কেন তিনি এই কথা বলেছিলেন, তার ও সদুত্তর পাওয়া যায়না. পন্ডিত জওহরলাল নেহেরুর মৃত্যুর পর তিন মূর্তি মার্গ এ পন্ডিতজির দেহের পাশে অবিকল নেতাজির মত দেখতে ব্যাক্তি কে ছিলেন? এই সব প্রশ্নের জবাব মেলেনি. আর মেলেনি বলেই নেতাজি আজও মিথ.

Featured article

%d bloggers like this: