28 C
Kolkata

উপরাষ্ট্রপতি নির্বাচনে আলভাকে সমর্থন AAP-JMM-এর

নিজস্ব প্রতিবেদন: কথাতেই বলে রাজনীতিতে কখন কি হয় বোঝা দায়। যে দল রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে এনডিএ প্রার্থী দ্রৌপদী মুর্মুকে সমর্থন করেছিল তাঁরাই এখন কথা বলছে বিজেপির বিরুদ্ধে। আসন্ন উপরাষ্ট্রপতি নির্বাচনে পছন্দের উপরাষ্ট্রপতি পদপ্রার্থীর নাম জানিয়ে দিয়েছে আম আদমি পার্টি (এএপি) এবং ঝাড়খণ্ড মুক্তি মোর্চা (জেএমএম)। বিরোধীদের তরফে ভাইস-প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী মার্গারেট আলভাকে সমর্থন করার কথা ঘোষণা করেছে তারা।

জেএমএম সুপ্রিমো শিবু সোরেন, ১৮ জুলাইয়ের রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের জন্য এনডিএ প্রার্থী দ্রৌপদী মুর্মুকে সমর্থন করার কথা বলেছিলেন। অন্যদিকে তিনিই ৬ আগস্টের ভাইস প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে কংগ্রেসের অভিজ্ঞ প্রার্থী আলভার পক্ষে ভোট দেওয়ার জন্য তাঁর দলের সাংসদদের নির্দেশ দেন। আপ সাংসদ সঞ্জয় সিংও ঘোষণা করেছেন যে তারা আসন্ন ভাইস প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বিরোধী প্রার্থী মার্গারেট আলভাকে সমর্থন করবেন।

আরও পড়ুন:  Ashok Gehlot: রাজস্থানের মুখ্যমন্ত্রী বদলের সম্ভাবনা!

প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী আলভা লোকসভা এবং রাজ্যসভার সব সদস্যকে চিঠি লেখেন। লোকসভা এবং রাজ্যসভার সদস্যদের নিয়ে ইলেক্টোরাল কলেজ গঠন হয়। তাদের কাছে সমর্থন চেয়ে চিঠি লেখেন তিনি। বলেন ‘যদি উপরাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হই, আমি সাংবিধানিক অদিকারকে সুরক্ষিত রাখতে এবং আমাদের সংসদীয় গণতন্ত্রকে শক্তিশালী করতে অক্লান্ত পরিশ্রম করতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। রাজ্যসভার চেয়ারপার্সন হিসাবে, আমি বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের মধ্যে সেতুবন্ধন তৈরি করতে, জাতীয় গুরুত্বপূর্ণ ইস্যুতে ঐকমত্য তৈরি করতে এবং সংসদের গৌরব পুনরুদ্ধার করতে সাহায্য করব।’

আরও পড়ুন:  Indian Railway: খুব শীঘ্রই বদলে যাবে এই রেল স্টেশন, পাবেন বিমানবন্দরের মত সুযোগ-সুবিধা

বিরোধী প্রার্থী পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে আসন্ন উপরাষ্ট্রপতি নির্বাচন থেকে টিএমসির বিরত থাকার সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনার জন্য অনুরোধ করেন। তিনি আম আদমি পার্টির প্রধান অরবিন্দ কেজরিওয়ালের কাছে তার প্রার্থীপদের জন্য সমর্থন চাইতে যান। এদিকে, বহুজন সমাজ পার্টির (বিএসপি) প্রধান মায়াবতী এনডিএ-র উপরাষ্ট্রপতি পদপ্রার্থী ধনখরকে সমর্থন করার কথা ঘোষণা করেছেন। মায়াবতি ট্যুইটে লেখেন, ‘এটা সবাই জানেন যে রাষ্ট্রপতি পদের নির্বাচনে সরকার ও বিরোধীদের মধ্যে ঐকমত্যের অভাবের কারণে, দেশটি এর সর্বোচ্চ পদের জন্য নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এখন, একই পরিস্থিতির কারণে, উপরাষ্ট্রপতি পদের নির্বাচনও ৬ আগস্ট অনুষ্ঠিত হতে চলেছে।’

আরও পড়ুন:  সাভারকারকে কি স্বাধীনতা সংগ্রামী বলে মেনে নিল কংগ্রেস?

Featured article

%d bloggers like this: