29 C
Kolkata

Rape: রক্ষকই ভক্ষক! বাবার লাগাতার ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা নাবালিকা মেয়ে

নিজস্ব প্রতিবেদন: রক্ষকই ভক্ষক! মেয়েকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠল জন্মদাতা পিতার বিরুদ্ধে। দশ মাস ধরে লাগাতার ধর্ষণের ফলে অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে নাবালিকা মেয়ে। হাসপাতালে পুত্রসন্তানের জন্ম দেয় সে। ন্যক্কারজনক এই ঘটনাটি ঘটেছে তামিলনাড়ুতে। ইতিমধ্যে, অভিযুক্ত ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

জানা গিয়েছে, নাবালিকার বাবা-মায়ের বিচ্ছেদ হয়ে গিয়েছে ৮ বছর আগে। তারপরে ভাইয়ের সঙ্গে দাদু-ঠাকুমার কাছেই থাকত ওই নাবালিকা। প্রতিদিন ঠাকুমার রান্না করে দেওয়া খাবার পৌঁছে দিত বাবাকে। সেই সময়েই তাকে ধর্ষণ করা হত। অভিযোগ, গত বছর নভেম্বর মাস থেকে নাবালিকাকে নির্যাতন করে আসছে তার বাবা। বারবার ধর্ষণের ফলে অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে সে। এই অবস্থায় তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হলে পুত্রসন্তানের জন্ম দেয় ওই নাবালিকা। এরপরই বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে।

আরও পড়ুন:  খুঁচিয়ে বের করা হচ্ছে পুরোনো কাসুন্দি
আরও পড়ুন:  Covid-19 : দেশে করোনা পরিস্থিতি কেমন জানুন এক নজরে ...

হাসপাতালের তরফ থেকেই পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করা হয়। তখনই জিজ্ঞাসাবাদ করে জানা যায়, মেয়েটির বাবা দীর্ঘদিন ধরে ধর্ষণ করত। সেই সঙ্গে মেয়েটিকে হুমকি দিয়েছিল, এই ঘটনার কথা কাউকে জানালে খুব খারাপ হবে। তদন্তের পরে অভিযুক্ত ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে ভেলোর থানার পুলিশ। জানা গিয়েছে, ৪১ বছর বয়সি ওই ব্যক্তি নির্মাণ শ্রমিক হিসাবে কাজ করত। আপাতত তাকে পুলিশি হেফাজতে রাখার নির্দেশ দিয়েছে আদালত। পকসো আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে। তাছাড়াও ভারতীয় দণ্ডবিধির বেশ কিছু ধারা আরোপ করা হয়েছে।

Featured article