26 C
Kolkata

Crime: শ্বশুরবাড়ি ফিরতে নারাজ মেয়ে, ভয়ঙ্কর কান্ড ঘটালেন বাবা…

সিরসা: জাঁকজমক করে মেয়ের বিয়ে দিয়েছিলেন। কিন্তু বিয়ের পর থেকেই মেয়ে বাপের বাড়িতে এসে থাকতো যা একেবারেই পছন্দ ছিল না মেয়ের বাবার। মেয়েকে স্বামীর কাছে ফিরে যাওয়ার জন্য বারবার বলা হলেও কিছুতেই রাজি ছিলেন না ওই যুবতী। এরপরই রাগের বশে ভয়ঙ্কর কান্ড ঘটালেন বাবা। নিজের মেয়েকে পিটিয়ে মেরে ফেলার অভিযোগ উঠেছে তাঁর বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর প্রদেশের সিরসার ভারতনগরের কাছে। ঘটনা নিয়ে ইতিমধ্যে খুনের মামলা দায়ের করা হয়েছে।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, মৃত যুবতীর নাম মনিকা(৩০)। ২০০৮ সালে ওই যুবতীর সঙ্গে চিরঞ্জিত নামের এক যুবকের বিয়ে হয়েছিল। কিন্তু, বিয়ের পর প্রায়শই শ্বশুরবাড়ি থেকে বাপের বাড়িতে এসে থাকতেন তিনি। ২০২২ সালের অগস্টে পুরোপুরি চলে আসেন তিনি। যা নিয়েই অসতুষ্ট ছিলেন তাঁর বাবা ভেদপাল।

আরও পড়ুন:  ‘চারপাশে এত দুর্বৃত্ত, একা সামলাতে পারছেন না দিদি’, কেন এমন বললেন বিচারপতি !

মৃতের ভাই মিত্রসেন জানিয়েছেন, তাঁদের বাড়িতে এসে থাকা নিয়ে আপত্তি ছিল তাঁর বাবার। তিনি প্রায়শই বিষয়টি নিয়ে ঝগড়া করতেন। তাঁর অভিযোগ, সম্প্রতি মত্ত অবস্থায় এসে তাঁর বোনকে হেনস্থাও করেছেন তাঁর বাবা। ১১ জানুয়ারি মদ খেয়ে এসে ফের হেনস্থার চেষ্টা করেন ভেদপাল। তখন মনিকাকে চ্যালা কাঠ দিয়ে মারতে শুরু করেন। সেই আঘাতেই মৃত্যু হয় মনিকার। মিত্রসেন জানিয়েছেন, তাঁরা বাড়িতে ফিরে বাবাকে মারতে দেখে আটকানোর চেষ্টা করেছিলেন। কিন্তু পারেননি।

মৃতের ভাইও থানায় অভিযোগ দায়ের করেন তাঁর বাবার বিরুদ্ধে। ঘটনা নিয়ে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০২ ধারায় মামলা দায়ের করেছে পুলিশ। যদিও অভিযুক্ত এখনও গ্রেপ্তার হননি।

Featured article

%d bloggers like this: