22 C
Kolkata

হামলার পিছনে ফারুকির হাত?

নিজেস্ব সংবাদদাতা: গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় কাবুলের বিমানবন্দরে বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় ইতিমধ্যে মৃত্যু হয়েছে প্রায় ৯২ জনের। আহতের সংখ্যাও প্রায় শতাধিক ছাড়িয়েছে। এই ঘটনায় ইতিমধ্যে নাম জড়িয়েছে কুখ্যাত জঙ্গি পাকিস্তানের মানসপুত্র ফারুকির নাম।

উল্লেখ্য, ইতিমধ্যে কাবুলের বিমানবন্দরের এই হামলার ঘটনার দায় নিয়েছে (ISIS) জঙ্গি সংঘঠন। কিন্তু তারমধ্যেও জঙ্গি ফারুকির নাম উঠে আসছে গোয়েন্দাদের হাতে। এর আগেই কাবুলের গুরদুয়ারে হওয়া হামলাতেও নাম জড়িয়েছিল এই কুখ্যাত জঙ্গির। ওই হামলায় ২৭ জন মারা গিয়েছিলেন। ঘটনার তদন্ত চলাকালীন ফারুকি ঘটনার দায় স্বীকার করেছিল। তার কথা অনুযায়ী সেই ঘটনায় পাকিস্তানের হাত ছিল। ২০১৫ সালে নানগর প্রদেশে তৈরি হয় ইসলামিক স্টেট।

জন্মলগ্ন থেকেই তালিবান জঙ্গিদের নিজেদের দলে আনার চেষ্টা শুরু করে এই মৌলবাদী সংগঠনটি। আর নিজেদের মতো ‘খিলাফত আইন ‘ তৈরির চেষ্টায় তালিবানের (Taliban) সঙ্গে সংঘাতে জড়িয়ে পড়ে আইএস। ভারতে বর্তমানে সক্রিয় ইসলামিক স্টেটের সেলগুলি খোরাসান শাখার অন্তর্ভুক্ত বলে মনে করেন গোয়েন্দারা। তারপর ২০১৮ সালে নানগরহার প্রদেশে প্রত্যাশামতো ফল না করায় খোরাসান শাখার শীর্ষপদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয় আবু ওমর খোরাসানি ওরফে মওলাই জিয়াউল হককে। তার জায়গায় দায়িত্ব দেওয়া হয় মওলাই আসলাম ফারুকিকে।

আরও পড়ুন:  Earthquake: ভয়াবহ ভূমিকম্প ইন্দোনেশিয়ায়, মৃত্যু ২০, আহত কমপক্ষে ৩০০

এই ঘটনায় ফারুকি যুক্ত থাকতে পারে তা আগেই জানিয়েছিলেন ভারতীয় গোয়েন্দারা। তাঁদের মতে, ফারুকি ছাড়া পাওয়ার পর র পুরনো সংগঠনের সঙ্গে যুক্ত হয়েছে। পাকমদতপুষ্ঠ জঙ্গি সংগঠনগুলিও ওই হামলা ঘটাতে চেয়েছিল। হামলার মাধ্যমেই ওই জঙ্গিরা আফগানিতানের মাটিতে আতঙ্ক ছড়াতে চেয়েছিলো ।

Featured article

%d bloggers like this: