29 C
Kolkata

hiran nomination : তৃণমূল প্রার্থীকে প্রণাম করে মনোনয়ন দিলেন বিজেপির হিরণ

নিজস্ব সংবাদদাতা : খড়্গপুর পৌরসভা এলাকার ৩৩ নম্বর ওয়ার্ডের বিজেপি প্রার্থী হিরণ। আর আজ মনোনয়ন জমা দিতে যাওয়ার সময় তাঁর দেখা হয় তৃণমূলের প্রার্থী তথা প্রবীণ তৃণমূল নেতা জহর পালের সঙ্গে। সে সময় কোনও সংকোচবোধ না করেই সবার সামনে জহর পালের পায়ে হাত দিয়ে প্রণাম করে আশীর্বাদ চান তিনি। তাঁকে আশীর্বাদ করেন জহর পালও। রোম্যান্টিক হিরো হিসেবে বেশ জনপ্রিয় হিরণ চট্টোপাধ্যায় । তবে হিরো ছাড়াও রাজনীতিতেও বেশ পরিচিতি রয়েছে তাঁর।

রাজনীতিতে নামলেও স্বভাবসুলভ মিষ্টি ব্যবহার দিয়ে অনেকেরই মন জয় করে নিয়েছেন তিনি। এমনকী, বিরোধীদেরও মন জয় করার কৌশল ভালো করেই জানেন তিনি। কিন্তু, তা হলেও রাজনৈতিক কারণে তাঁর সঙ্গে দূরত্ব তো রয়েছেই শাসকদল তৃণমূলের অনুগামীদের। এবার সেই হিরণের বিরল সৌজন্যের ছবি দেখল খড়্গপুর। মনোনয়ন প্রক্রিয়ার শেষ দিনে মনোনয়ন জমা দিতে খড়্গপুর মহকুমা শাসকের অফিসের সামনে হাজির হয়েছিলেন জহর পাল ও হিরণ চট্টোপাধ্যায়।

আরও পড়ুন:  #parthachatterjeearrest: অর্পিতার 'কাকু' পার্থ! তাই বলছে LIC নথি
আরও পড়ুন:  Howrah Accident: মধ্যরাতে দুর্ঘটনার মুখে পৰ্যটকবাহী বাস

তখনই প্রতিপক্ষের তৃণমূল নেতা জহর পালকে সামনে পেয়ে প্রণাম করে আশীর্বাদ নেন হিরণ। বিরল এই দৃশ্যের সাক্ষী হয়ে রইলেন তৃণমূল ও বিজেপি কর্মী-সমর্থকরা। নায়কদের এই ধরনের সৌজন্যের ছবি এর আগেও দেখা গিয়েছিল মেদিনীপুরে। গত লোকসভা নির্বাচনের আগে ঘাটালের সাংসদ দেব তাঁর প্রতিপক্ষে থাকা সিপিআই এর প্রার্থী সন্তোষ রানার বাড়িতে হাজির হয়েছিলেন।

সেখানে গিয়ে সন্তোষ রানার আশীর্বাদ নিয়েছিলেন তিনি। তবে আজকের সৌজন্য বিনিময় নিয়ে হিরণ সংবাদমাধ্যমের সামনে কোনও মন্তব্য করতে চাননি। যদিও জহর পাল বলেন, “সৃষ্টিকর্তা সব ঠিক করে রেখেছেন, বিধান ঠিক হয়ে যাবে। শুধু ফল প্রকাশের অপেক্ষা মাত্র। আমার আশীর্বাদ বা অভিশাপে কিছু এসে যাবে না। এ যুদ্ধে জনগণের আশীর্বাদ শেষ কথা।”

আরও পড়ুন:  #parthachatterjeearrest: পা ফোলা, সেলের মধ্যেই ড্রামের জলে স্নান করছেন পার্থবাবু
আরও পড়ুন:  Jalpesh: সপ্তাহ ঘোরার আগেই ফের দুর্ঘটনা

Related posts:

Featured article