25 C
Kolkata

Shivananda Baba: ১২৬ বছর বয়সেও ‘স্বল্পাহার’ সাধকের সুস্বাস্থ্যের মন্ত্র

নিজস্ব প্রতিবেদন: ১২৬ বছর বয়সী, বিশ্বের প্রবীণতম সাধক বাবার দীর্ঘ জীবনের রহস্য কি ? তা জানার বিপুল আকাঙ্খাকে সঙ্গে নিয়ে কলকাতার রবীন্দ্রসদনের উদ্দেশ্যে রওনা হয়েছিলাম। ২৩ সে জুন,বৃহস্পতিবার রবীন্দ্রসদনে শিবানন্দ বাবার ভক্তদের দ্বারা একটি মহার্ঘ্য অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছিল। উক্ত অনুষ্ঠানে সমাজের বিশিষ্ট ব্যক্তিদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মঠের প্রবীণ স্বামীজিরা,কৃষিমন্ত্রী শোভনদেব চট্টোপাধ্যায় এবং বিশিষ্ট ডাক্তারবর্গ।

অনুষ্ঠানের সঞ্চালনার দায়িত্বে ছিলেন সতীনাথ ভট্টাচার্য। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে শিবানন্দ বাবাকে সম্বর্ধনা দেওয়া হয়। বাবা নিরামিষাশী, স্বল্পাহারি, দুমুঠো ভাত-ডাল -সবজি ছাড়া বিশেষ কিছু খান না। মিষ্টি, তেল, ভাজাভুজি প্রভৃতি মুখরোচক খাবার খাদ্যতালিকা থেকে প্রত্যাহার করেছেন। আজও নিয়মিত যোগাভ্যাস করেন। বাবা অত্যন্ত বিনয়ী।তিনি গোদি দেওয়া চেয়ারে নয়, মাটিতে বসে ভক্তদের সাথে নিজের মনের কথা বলতে বেশি সাচ্ছন্দ্যবোধ করেন।

আরও পড়ুন:  Cirkus trailer:'সার্কাস' দেখাতে গিয়ে কারেন্ট শক রণবীর দীপিকার

১২৬ বছর বয়সেও অনুষ্ঠানের মঞ্চে তাঁর ব্যক্তিত্ব এবং উদ্যম ছিল দেখার মতো। বাবার কথায় ‘ইট দি লিকুইড এন্ড ড্রিঙ্ক দি সলিড’। অর্থাৎ খাবার খাওয়ার সময় ভাল করে চিবিয়ে এবং জলপান করার সময় আস্তে আস্তে সময় নিয়ে জলপান করা উচিত। বাবা শিবানন্দ রাষ্ট্রপতি দ্বারা পদ্মশ্রী সম্মানে ভূষিত হয়েছেন।সাদামাটা জীবনযাপন,সরল ও পরিমিত খাদ্যাভাস, নিয়মিত যোগ-প্রানায়ামের অভ্যাস আমাদেরকে বহু দুরারোগ্য রোগ-ব্যাধি থেকে মুক্ত রাখতে পারে তার সুন্দর উদাহরণ হলেন ১২৬ বছরের এই বাবা শিবানন্দ,চোখে না দেখলে সত্যিই বিশ্বাস হতো না। এই বিশিষ্ট গুণীব্যক্তিত্বের দেখা পেয়ে আমরা সত্যিই ধন্য।

Featured article

%d bloggers like this: