28 C
Kolkata

INDW Win : ইংল্যান্ডকে হারিয়ে গেমসের ফাইনালে ভারত, পদক নিশ্চিত হরমনপ্রীতদের

বার্মিংহাম: শনিবার বার্মিংহামের এজবাস্টনে কমনওয়েলথ গেমস মহিলা ক্রিকেটের সেমিফাইনালে ইংল্যান্ডকে চার রানে হারিয়ে ফাইনালের টিকিট পাকা করে ফেলল ভারত। কমনওয়েলথ গেমসে এবারই প্রথম রয়েছে মহিলাদের ক্রিকেট। গ্রুপ এ-তে অস্ট্রেলিয়ার কাছে হেরে অভিযান শুরু করলেও পাকিস্তানের পর বার্বাডোজকেও উড়িয়ে দেয় হরমনপ্রীত কউরের ভারত। অস্ট্রেলিয়া বুধবার পাকিস্তানকে হারানোয় গ্রুপ শীর্ষে থেকে সেমিফাইনালে পৌঁছে যায় অজিরা। অন্যদিকে ভারত সেমিতে যায় এই গ্রুপের দ্বিতীয় দল হিসেবে। আর এদিন সেমিফাইনালে ইংল্যান্ডকে হারিয়ে কমনওয়েলথ গেমসে পদক জয় নিশ্চিত করে ফেলল স্মৃতি, হরমনপ্রীত, দীপ্তিরা।

এদিন ১৬৫ রানের লক্ষ্যমাত্রা দিয়ে ইংল্যান্ডকে ২০ ওভারে ছয় উইকেটে ১৬০ রানে আটকে দিল হরমনপ্রীতের দল। ভারতের হয়ে স্নেহ রানা দুটি উইকেট নেন। টস জিতে ভারতীয় দলের ইনিংসের শুরুটা ভালো করেন দুই ওপেনার স্মৃতি মন্ধনা ও শেফালি ভার্মা। প্রথম থেকেই বিধ্বংসী মেজাজে ব্যাট করতে থাকেন স্মৃতি। একের পর এক মারকাটারি শট খেলতে থাকেন তিনি। পাওয়ার প্লে শেষ হওয়ার আগেই অর্ধশতরানের পার্টনারশিপ পূরণ করে ফেলেন দুই ভারতীয় ওপেনার। ঝড়ের গতিতে নিজের অর্ধশতরানও পূরণ করেন স্মৃতি মন্ধনা। অবশেষে ৭৬ রানে প্রথম উইকেট পড়ে ভারতের। ১৫ রান করে ফেরায়া ক্যাম্পের বলে আউট হন শেফালি ভার্মা। স্মৃতি মান্ধানা ৩২ বলে আটটি চার এবং তিনটি ছক্কা সহযোগে ৬১ রান করেন। জেমাইমা রডরিগেজ ৩১ বলে ৪৪ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেন, সাতটি চার মারেন তিনি। প্রথমে ব্যাট করে হরমোনের ভারত ২০ ওভারে পাঁচ উইকেটে ১৬৪ রান করে ভারত। ইংল্যান্ডের বোলিং বিভাগের পক্ষে ফ্রেয়া কেম্প ভালো ফর্মে ছিলেন এবং দুটি উইকেট নেন।

আরও পড়ুন:  IPS Akash Magharia: ইডি-র তলব এবার আকাশ মাঘারিয়াকে 

জবাবে ব্যাট করতে নেমে ঝোড়ো শুরু করেন ইংল্যান্ডের দুই ওপেনার সোফিয়া ডাঙ্কলে ও ড্য়ানি ওয়াট। ২৮ রানে প্রথম উইকেট পড়ে ইংলয়ান্ডের। ১৯ রান করে দীপ্তি শর্মার বলে আউট হন সোফিয়া ডাঙ্কলে। এরপর ড্য়ানি ওয়াট ও অ্যালাইস ক্যাপসে মিলে এগিয়ে নিয়ে যান দলের স্কোর বোর্ড। বেশ কিছু আক্রমণাত্মক শট খেলেন ওয়াট। ৬৩ রানে দ্বিতীয় উইকেট পড়ে ইংল্যান্ডের। ১৩ রান করে দুর্ভাগ্যবশত রান আউট হন ক্যাপসে। ড্যানি ওয়াটকে সঙ্গ দেন ন্যাট স্কিভার। তবে তারা বড় পার্টনারশিপ করতে পারেননি। ৮১ রানে তৃতীয় উইকেট পড়ে। ৩৫ রান করে স্নেহ রানার বলে আউট হন ড্যানি ওয়াট। এরপর দলের ইনিংসের রাশ ধরেন ন্যাট স্কিভার ও অ্যামি জোনস। দুজন মিলে ঠান্ডা মাথায় এগিয়ে নিয়ে যান দলকে। সুযোগ পেলেই খেলেছেন আক্রমণাত্মক শট। অর্ধশতরানের পার্টনারশিপও পূরণ করেন তারা। ১৩৫ রানে চতুর্থ উইকেট পড়ে। ৩১ রান করে ররান আউট হন অ্যামি জোনস। এরপর ন্যাট স্কিভার ছিল ইংল্যান্ডের একমাত্র জয়ের আশা। কিন্তু দলের ১৫১ রানের মাথায় ব্যক্তিগত ৪১ রানে রান আউট হন তিনিও। রুদ্ধশ্বাস ম্যাচে শেষ ওভারে জয়ের জন্য দরকার ছিল ১৪ রান। ১৫২ রানে ষষ্ঠ উইকেট পড়ে ইংল্যান্ডের। খতা না খুলে ক্যাথেরিন ব্রান্ট আউট হন স্নেহ রানার বলে। শেষ পর্যন্ত ১৬০ রানে শেষ হয় ইংল্যান্ডের ইনিংস। ৪ রানে ম্যাচ জিতে ফাইনালের টিকিট ও পদক জয় নিশ্চিত্‍ করল ভারতীয় মহিলা ক্রিকেট দল।

আরও পড়ুন:  IPL : পুরনো ফরম্যাটে ফিরছে আইপিএল, আগামী মরশুমেই মহিলা সংস্করণ
আরও পড়ুন:  Satvut Advut: পরানই 'সৎ ভূত অদ্ভুত'?

Related posts:

Featured article

%d bloggers like this: