35 C
Kolkata

Fraud : গ্রেফতার ভুয়ো পুলিশ আধিকারিক

নিজস্ব প্রতিবেদন :- কলকাতার পর এবার পূর্ব মেদনীপুর।মিলল ভুয়ো পুলিশের হদিস। পুলিশের জালে গ্রেফতার অভিযুক্ত। কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে ভুয়ো পুলিশের ইউনিফর্ম এবং আইডেন্টি কার্ড।

বৃহস্পতিবার রাতে ভূপতিনগর থানার পুলিশ ইটাবেড়িয়া এলাকা থেকে অভিযুক্ত ভুয়ো পুলিশ কর্মীকে গ্রেফতার করে। পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে সে নিজের নাম জানায় রূপক কুমার মাইতি। তার বাড়ি পটাশপুর থানার দক্ষিণ সন্দলপুর গ্রামে। শুক্রবার অভিযুক্তকে কাঁথি মহকুমা আদালতে তোলা হয়। বিচারক তার জামিন নাকচ করে পুলিশি হেফাজতের নির্দেশ দেন। পূর্ব মেদিনীপুরে ভুয়ো পুলিশ কর্মী গ্রেফতারের পর রীতিমতো চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকায়। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে জেলা পুলিশ থেকে শুরু করে ভূপতিনগর থানার পুলিশ।

সূত্রের খবর, দীর্ঘদিন ধরে পটাশপুরে ওই যুবক নিজেকে পুলিশ কর্মী বলে দাবি করতেন বলে অভিযোগ। একাধিক পুলিশ ক্যাম্পে গিয়ে নিজেকে পুলিশ পরিচয় দিয়ে অন্য পুলিশ কর্মীদের সঙ্গে ছবি তুলতেন বলেও অভিযোগ। পাশাপাশি নকল আইকার্ডও অভিযুক্ত বানিয়ে নেয় বলে অভিযোগ। কোনওমতেই ওই যুবককে শনাক্ত করা সম্ভব হচ্ছিল না। কিন্তু কথায় আছে পাপ বাপকেও ছাড়ে না। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ভূপতিনগর থানার ইটাবেড়িয়া বাজারে পুলিশের পোশাক পড়ে ঘুরতে দেখে পুলিশের সন্দেহ হওয়ায় ওই যুবককে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। সেসময় ওই যুবক পুলিশ আধিকারিকদের ছবি ও পরিচয়পত্র দেখান। তিনি নিজেকে পুলিশ কর্মী বলেও দাবি করেন। পাশাপাশি একাধিক ক্যাম্পে পুলিশ কর্মীদের সঙ্গে তোলা ছবি দেখান। প্রথমে পুলিশকর্মীরা কার্যত বাকরুদ্ধ হয়ে পড়েন। দীর্ঘক্ষণ জিজ্ঞাসাবাদের পর উঠে আসে চাঞ্চল্যকর তথ্য। এরপর খোঁজখবর নিয়ে জানতে পারেন ওই যুবক পুলিশকর্মী নন। সে পুলিশের পোশাক পড়ে এলাকায় ঘুরে বেড়াচ্ছিল। তারপরই অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

আরও পড়ুন:  Angel Di Maria : পিএসজিকে বিদায় জানালেন অ্যাঞ্জেল ডি মারিয়া
আরও পড়ুন:  সাবধান! Facebook Password 'চুরি’ করেছে এই অ্যাপগুলি, আপনার ফোনেও আছে?

ঘটনা প্রসঙ্গে কাঁথি মহকুমা পুলিশ আধিকারিক সোমনাথ সাহা বলেন,”ভুয়ো পুলিশ পরিচয় দিয়ে এলাকায় ঘুরে বেড়ানোর অভিযোগে এক যুবককে গ্রেফতার করা হয়েছে। পুরো ঘটনাটি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তদন্তের স্বার্থে অভিযুক্তকে হেফাজতে নেওয়া হয়েছে।”যদিও তদন্তের কারণে বেশি কিছু তথ্য জানাতে রাজি হননি তিনি ৷

Featured article