28 C
Kolkata

‘এত বড় ভোট পরবর্তী হিংসা আগে কখনও শুনিনি’

নিজস্ব সংবাদদাতা : কোচবিহারে রাজ্যপালের সফর বিতর্ক শেষ হতে না হতে সেই বিতর্কে কার্যত ঘি ঢেলে শনিবার হিংসা কবলিত নন্দীগ্রাম পরিদর্শনে এসে রাজ্যকে কটাক্ষ করলেন রাজ্যের সাংবিধানিক প্রধান রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়।

শনিবার হিংসা কবলিত নন্দীগ্রাম পরিদর্শনে এসে রাজ্যপাল সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে বলেন, “এক দিকে কোভিড, অন্য দিকে নজিরবিহীন ভাবে ভোট পরবর্তী হিংসা, যা কি না সম্পূর্ণ ভাবে উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। এই দুইয়ের জেরে বাংলা অত্যন্ত সঙ্কটের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে।

ভোটের পর এই ধরনের হিংসার কথা কোনও দিন শুনিনি। মুখ্যমন্ত্রীকে অনুরোধ, বিষয়টি নিয়ে পদক্ষেপ করার সময় এসেছে। লক্ষ লক্ষ মানুষ কষ্ট পাচ্ছেন।’’ রাজ্যে ভোটের ফল ঘোষণা হওয়ার পর থেকেই রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে বিক্ষিপ্ত হিংসার ঘটনা উঠে আসছিল।

আরও পড়ুন:  Howrah: নবরূপে হাওড়া ব্রিজ
আরও পড়ুন:  #TeachersDay: বিদ্যাসাগরের জন্মদিনে বাংলায় শিক্ষক দিবস ঘোষণার আর্জিতে সমর্থন

এমন পরিস্থিতিতে গত কয়েকদিন আগে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের বিশেষ প্রতিনিধি দল রাজ্যে এসে হিংসা কবলিত স্থানগুলি পরিদর্শন করে গেছেন। এরপরও রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড় একাধিকবার রাজ্যের বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।

নিজেই সরজমিনে খতিয়ে দেখতে রাজ্যের হিংসা কবলিত স্থানগুলি পরিদর্শনে যান রাজ্যপাল। রাজ্যপালের এই ধরনের সফরকে কেন্দ্র করে তৃণমূলের তরফ থেকে রাজ্যপালের এই ধরনের সফর রাজনৈতিক সফর বলে কটাক্ষ করা হয়েছে।

পাশাপাশি রাজ্যপাল হিংসা কবলিত এলাকাগুলিতে গিয়ে ইন্ধন যোগাচ্ছেন বলেও রাজ্যের তৃণমূল কংগ্রেসের তরফ থেকে অভিযোগ করা হয়েছে।

এদিন রাজ্যপালের সফর প্রসঙ্গে কটাক্ষ করে পূর্ব মেদিনীপুর জেলা তৃণমূল সভাপতি তথা রাজ্যের মন্ত্রী সৌমেন মহাপাত্র বলেন, “রাজ্যপালকে সাধারণ মানুষ এড়িয়ে চলছেন। দুই থেকে চার জন লোককে নিয়ে তিনি ঘুরে বেড়িয়েছেন।

আরও পড়ুন:  Durga Puja: কালের ধুলোয় মলিন 'মহিষাসুরমর্দিনী' স্রষ্টা বাণীকুমার

কান্নাকাটি তো দূরের কথা এখনো পর্যন্ত তাকে কেউ কোনো অভিযোগই জানাননি। ” সবমিলিয়ে শনিবারও কার্যত অব্যাহত থাকল রাজ্য সরকার ও রাজ্যপালের সংঘাত।

আরও পড়ুন:  Howrah: নবরূপে হাওড়া ব্রিজ

Featured article

%d bloggers like this: