29 C
Kolkata

Mekhliganj : রেশন কার্ড দুর্নীতির প্রমান লোপাটের চেষ্টা ?

নিজস্ব প্রতিবেদন : গভীর রাতেও খোলা রয়েছে মেখলিগঞ্জ মহকুমা খাদ্য নিয়ামকের করণের আর তা নিয়েই চরম দন্দ্ব এলাকাবাসীর মনে। অফিস খোলা থাকার কারণে রাত্রে অফিসে চোর ঢুকেছে, এই সন্দেহে অফিসের সামনে জড়ো হন এলাকাবাসী।আর তারপরেই অফিস থেকে বেরিয়ে আসেন খাদ্য দপ্তরের আধিকারিকেরা।

এরপর এই গোটা বিষয়টিকে নিয়েই সন্দেহ সন্দেহ জাগে সাধারণ মানুষের মনে। দপ্তরের সামনে বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন উপস্থিত সাধারণ মানুষ।পরে অফিসের দরজা বন্ধ করে পুলিশে খবর দেন এলাকার সাধারণ মানুষ। খবর পেয়ে ঘটনায় পৌছায় মেখলিগঞ্জ থানার পুলিশ। যদিও তারপর আধিকারিকরা বেরিয়ে যান অফিস থেকে। সংবাদ মাধ্যমের সামনে তারা কিছু বলতে চাননি।

বিরোধীদের দাবি কি এমন প্রয়োজন যার জন্য গভীর রাত পর্যন্ত অফিস খুলে রেখে কাজ করতে হচ্ছিল তার কোন সদউত্তর নেই। বিরোধীরা দাবি করেন বামেদের খাদ্যমন্ত্রী থাকার সময় পরের অধিকারী অন্যায় ভাবে অনেক রেশন কার্ড থেকে শুরু করে দুর্নীতির সাথে যুক্ত ছিলেন সেই সমস্ত তথ্য প্রমাণ লোপাঠ করার চেষ্টা করছিল আধিকারিকরা। যদিও শাসক দলের পক্ষ থেকে অভিযোগ অস্বীকার করা হয়। ঘটনার জেরে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়ায় এলাকায়। প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে কি কারনে এত রাত পর্যন্ত অফিস খুলে রেখে কাজ করছিল আধিকারিকরা ?

আরও পড়ুন:  WB Cabinet Ministry: ফিরহাদের হাত থেকে গেল দুই দপ্তর! মন্ত্রিসভায় বড়সর রদবদল

Featured article

আরও পড়ুন:  আস্থানাতেইকী আস্থা কেন্দ্রীয় সরকারের?