18 C
Kolkata

হোয়াটস্অ্যাপের প্রাইভেসি পলিসিতে আবার নতুন মোড়!

নিজস্ব প্রতিবেদন: সম্প্রতি হোয়াটস্অ্যাপের প্রাইভেসি পলিশি নিয়ে অনেক বির্তক দেখা ধ
দিয়েছে ইউজারদের মধ্যে। চলতি বছরে ঘোষণা করা হয়েছিল ২৩ ফ্রেবুয়ারীর মধ্যে কোনো ইউজার যদি প্রাইভেসি পলিসি না গ্ৰহন করেন তাহলে অ্যাকাউন্ট বল্ক করার পর। এই ঘোষনার পর অনেকেই হোয়াটস্অ্যাপ ছেড়ে অন্য মেসেজ মাধ্যম ব‍্যাবহার করতে শুরু করেন। ফলে একরকম চাপে পড়েই প্রাইভেসি পলিসি আপডেটেড করার জন্য ১৫ মে পর্যন্ত সময় দিয়েছিল। কিন্তু কিছুদিন হল হোয়াটস্অ্যাপ জানাই কোনো ইউজারপ্রাইভেসি পলিসি না আপডেট করলেও তার অ্যাকাউন্ট বন্ধ করা হবেনা। কোম্পানির তরফে পরিষ্কার ভাবে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, এই প্রাইভেসি পলিসি যে গ্রাহকদের স্বীকার করতেই হবে, এমন কোনও বাধ্যবাধকতা নেই। কিন্তু দুঃখের বিষয় হল, এই হোয়াটস্অ্যাপের এই নতুন গোপনীয়তা সংক্রান্ত নীতি স্বীকার না করলে, অনেক ফিচার্সই পাবেন না ইউজারেরা। অর্থাৎ, একপ্রকার অচল হয়ে থাকবে ইউজারদের হোয়াটস্অ্যাপ অ্যাকাউন্ট।

আরও পড়ুন:  অর্থসংকট! টুইটার-গুগলের মতোই এবার কর্মী ছাঁটাইয়ের পথে হাঁটছে OYO

খুব সম্প্রতি ফেসবুকের মালিকানাধীন এই হোয়াটস্অ্যাপ, তার নতুন গোপনীয়তা নীতি সংক্রান্ত যাবতীয় সমালোচনার বিরুদ্ধে দিল্লি হাইকোর্টে একটি আবেদন করেছিল। সেখানে হোয়াটস্অ্যাপ সাফ জানিয়েছে যে, অধিকতর অ্যাপস এবং ওয়েবসাইটই এই একই নীতি অনুসরণ করে এবং তারা হোয়াটস্অ্যাপের থেকে অনেক বেশি পরিমাণে ইউজারের ডেটা সংগ্রহ করে। Zomato, BigBasket, Ola, Koo, Truecaller এবং Aarogya Setu-র মতো অ্যাপ বা ওয়েবসাইটের বিরুদ্ধেও পাল্টা অভিযোগ করে হোয়াটসঅ্যাপের দাবি, এরা অনেক বেশি ইউজারের ব্যক্তিগত এবং গোপনীয় তথ্য সংগ্রহ করে।

একাধিক মিডিয়া রিপোর্ট অনুযায়ী, 5 মে দিল্লি হাইকোর্টে এই আবেদন জানিয়েছিল হোয়াটস্অ্যাপ। সেখানেই এই ইনস্ট্যান্ট মেসেজিং অ্যাপ জানিয়েছিল যে, অনেক জনপ্রিয় অ্যাপস এবং ওয়েবসাইট তাদের থেকেও বেশি পরিমাণে ইউজারের ডেটা সংগ্রহ করে থাকে। Microsoft, Google, Zoom এবং Republic TV-র মতো জনপ্রিয় সাইটের নাম উল্লেখ করে, তাদের কাঠগড়ায় তুলেছে হোয়াটসঅ্যাপ। এই ইনস্ট্যান্ট মেসেজিং অ্যাপ দিল্লি হাইকোর্টে জমা দেওয়া হলফনামায় বলেছে, অনেক ইন্টারনেট-ভিত্তিক অ্যাপস এবং ওয়েবসাইটগুলির গোপনীয়তা নীতি পর্যালোচনা করে স্পষ্ট করে দেয় যে, তারা তাদের নীতিমালায় যে ডেটা এবং তথ্য সংগ্রহ করে তা হোয়াটস্অ্যাপের আপডেটেড প্রাইভেসি পলিসি ২০১২-এর অনুরূপ এবং অনেক অ্যাপস আরও বেশি পরিমাণে তথ্য সংগ্রহ করে।

আরও পড়ুন:  Toyota India: ভারতের Toyota-র স্তম্ভ পতন

Featured article

%d bloggers like this: